অন্যকে দেখে নিজে শিখি

মোংলা প্রতিনিধি

আপডেট : ০৮:৩৬ পিএম, শুক্রবার, ২৯ ডিসেম্বর ২০২৩ | ২৭৭

মোংলায় একটি গ্রামকে প্রাকৃতিক সৌন্দার্য্য বর্ধন করার লক্ষে বৃক্ষ রোপন কর্মসুচিতে অংশ নিয়েছেন এন ডি সি ও পল্লী কর্ম সহায়ক ফাউন্ডেশন (পিকেএসএফ) ব্যাবস্থাপনা পরিচালক ড. নমিতা হালদার। বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে তিনি নিজ হাতে বিভিন্ন গাছের চারা রোপন করে এর শুভ উদ্বোধন করেণ।


গাছ লাগান পরিবেশ বাচান’জনস্বাস্থ্যের ঝুকি কমান, এ প্রতিপাদ্যকে লক্ষ করে মোংলায় একটি গ্রামকে সৌন্দায় বর্ধন করতে বিভিন্ন প্রজাতির গাছের চারা রোপন করা হয়েছে। “মানুষ অন্যকে দেখে নিজে শেখে” এ কথাটা প্রমান করার জন্য মোংলা উপজেলার চাদপাঁই ইউনিয়নের উত্তর কালীকাবাড়ী একটি গ্রামকে প্রাকৃতিক সৌন্দার্য় বর্ধন বৃদ্ধি করার লক্ষে একটি বৃক্ষ রোপন কর্মসুচি গ্রহন করা হয়। ট্রান্সফর্ম ইকোভিলেজ নেটওয়ার্ক প্রকল্পের বাস্তাবায়নে ও বিএএসডি’র সহায়তায় এ কর্মসুচিতে বনজ, ভেষজ, ফলজ ও ওষধী গাছের চারা রোপন কর্মসুচিতে অংগ্রহন করেণ এনডিসি ও পিকেএসএফ ব্যাবস্থাপনা পরিচালক ড. নমিতা হালদার। বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে নিজ হাতে পরিবেশ বান্ধব এসকল মুল্যবান গাছ রোপন করে তিনি এর শুভ উদ্বোধন করেণ। এ গাছের মধ্যে রয়েছে আমলকী, হরতকী, বহেরা, নিম, অর্জুন, কৃষ্ণচুরা, ঝাড়ুল, বকুল, দেবদারু, জাম ও সজনে সহ বিভিন্ন প্রজাতির প্রায় এক হাজার বিভিন্ন গাছের চারা রোপন করা হয়। পরে “রোজ ল্যান্ড রিসোর্স সেন্টার” নামে একটি বাড়িকে কৃষকদের শিক্ষা কেন্দ্র হিসেবে প্রতিষ্ঠানিক নামকরণ করেন ড. নমিতা হালদার। এসময় প্রধান অতিথির ড. নমিতা হালদারের সাথে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নারায়ন চন্দ্র পাল, উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা মোঃ সাইফুল ইসলাম, বিএএসডির ম্যানেজার এ্যাডয়ার্ড এ মধু সহ স্থানীয় কৃষক ও বিভিন্ন জিও এনজি কর্মকর্তারা সহ স্থানীয় জনপ্রতিনিধি ও কয়েক শতাধিক কৃষক উপস্থিত ছিলেন।


প্রধান অতিথি ড. নমিতা হালদার বলেন, সকলে মিলে যদি একটি গ্রামকে প্রাকৃতিক সৌন্দার্য করে গড়ে তুলতে পারে, তা হলে এদের দেখা দেখি অন্য গ্রামগুলো তাদের নিজ উদ্দ্যোগে সুন্দার্য করে গড়ে তুলবে। এছাড়া আগে প্রতিটি বাড়িতে কমবেশী ফলজ, বনজ ও ওষধী গাছ পাওয়া যেত কিন্ত এখন তা বিলুপ্ত হয়ে গেছে। পরিবেশকে বাচিয়ে রাখতে হলে গাছ লাগানোর কোন বিকল্প নেই। প্রধানমন্ত্রীও চাচ্ছে বেশী বেশী গাছ লাগাতে। কৃষি জমিতে ফসল ফলানোর জন্য আমাদের রাসনিক সার ব্যাবহার কমিয়ে জৈব সার ব্যাবহারে আরো সচেতন ও উদ্দ্যোগী হতে হবে বলেও জানান প্রধান অতিথি।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
  • নির্বাচিত