কাটাখালী ও শ্যামবাগাত দুটি জনবহুল গ্রাম্য সড়ক এখন মরণ ফাঁদ

পি কে অলোক,ফকিরহাট

আপডেট : ১২:২০ এএম, সোমবার, ৩ জুলাই ২০২৩ | ৫৫৮

ফকিরহাটের কাটাখালী বাসস্ট্যান্ড ভায়া জলছত্র বটতলা ও শ্যামবাগাত বাসস্ট্যান্ড ভায়া বেতাগা সড়ক দুইটি এখন মরণ ফাঁেদ পরিনত হয়েছে। দীর্ঘ দেড় বছর ধরে গুরুত্বপূর্ণ এই সড়ক দুটি পূনঃ সংস্কার না করায় স্থানীয় জনসাধারন সীমাহীন দুর্ভোগের মধ্যে চলাচল করতে বাধ্য হচ্ছেন। অতিদ্রুত সড়ক দুটি মেরামত করার জন্য স্থানীয় সরকার বিভাগ ও রেল বিভাগের উর্দ্ধতন কর্মকর্তাদের হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।


জানা গেছে, উপজেলার কাটাখালী বাসস্ট্যান্ড ভায়া জলছত্র বটতলা সড়কটি অত্যান্ত জনবহুল ও গুরুত্বপূর্ণ সড়ক হিসাবে বটিয়াঘাটা রুপসা ও ফকিরহাট এই তিনটি উপজেলার হাজার হাজার জনসাধারন এই সড়ক দিয়ে চলাচল করে থাকেন। তার মধ্যে লখপুর ইউনিয়নের ভট্টখামার, ভবনা, জাড়িয়া মাইট কুমরা, জাড়িয়া বারুইডাঙ্গা, কাহারডাঙ্গা, বটিয়াঘাটা উপজেলার বাইনতলা, নারায়ন খালী, ভাতগাতি, কুলটেরকান্দা, বলিয়াডাঙ্গা, ভান্ডারকোট সহ প্রায় ২০টি গ্রামের জনসাধারন এই সড়কটি দিয়ে চলাচল করে থাকেন। কিন্তু গত দেড় বছর পূর্বে খুলনা-মোংলা রেল প্রকল্পের উন্নয়ন কাজ চলাকালিন সময়ে ভারী ভারী যানবাহন চলাচল করায় নতুন সড়কটি চলাচলের অনুপযোগী হয়ে পড়ে।


কাটাখালী ভ্যান চালক সমবায় সমিতির সভাপতি মোঃ নিজাম উদ্দিন শেখ, ভানচালক মনিরুল আলম, হাসান আলী, সিদ্দিকুর রহমান, নুর ইসলাম ও মুজিবুর রহমান সহ একাধিক ব্যক্তিরা বলেন, সড়কটিতে বর্তমান এমন অবস্থার সৃষ্টি হয়েছে যে, ভ্যান রিক্সা মটর সাইকেল বা বাই-সাইকেলে চলাচল করা তো দুরের কথা পায়ে হেটে চলাচল করা প্রায় অসম্ভব হয়ে পড়েছে। কোন কোন স্থানে বড়বড় গর্তের সৃষ্টি হয়ে তা মরণ ফাঁেদ পরিনত হয়েছে। শুধু তাই নয়, একটু বৃষ্টি হলে সড়কের মাঝ পথে কোমর সমান পানি হয়। বড়বড় গর্তের কারনে প্রতিদিন দুর্ঘটনার কবলে পড়তে হয় জনসাধারনকে। তাদের দাবী অতিদ্রুত গুরুত্বপূর্ণ এই সড়কটি মেরামত করা সম্ভাব না হলেও অন্ততপর জনগনের চলাচলের জন্য কিছু ইটের পরিত্যাক্ত খোয়া ফেলে চলাচলের সুব্যবস্থা গ্রহন করা হয়।


এদিকে শ্যামবাগাত বাসস্ট্যান্ড ভায়া বেতাগা সড়কের ঐ একই অবস্থার সৃষ্টি হয়েছে। রেল বিভাগের ভারী ভারী যানবাহন চলাচল করার কারণে নতুন এই সড়কটি দীর্ঘ দেড় বছর ধরে চলাচলের অনউপযোগী হয়ে পড়েছে। গুরুত্বপূর্ণ সড়কটির বিভিন্ন স্থানে বড়বড় গর্ত হয়ে তা এখন মরন ফাঁদ। স্থানীয় জনসাধারন মরন ফাঁেদর কারনে বিকল্প সড়ক দিয়ে চলাচল করতে বাধ্য হচ্ছেন। এঅবস্থায় জনবহুল ও গুরুত্বপূর্ণ সড়ক দুটি দ্রুত মেরামত বা পূন সংস্কার করার জন্য স্থানীয় জনসাধারন স্থানীয় সরকার বিভাগ ও রেল বিভাগের উর্দ্ধতন কর্মকর্তাদের হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।


এব্যাপারে উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি স্বপন দাশ বলেন, শ্যামবাগাত বাসস্ট্যান্ড ভায়া বেতাগা সড়কটি পূনঃ সংস্কার করার জন্য টেন্ডার আহবান করা হয়েছে। অতিদ্রুত কাজ শুরু হবে। আর কাটাখালী বাসস্ট্যান্ড ভায়া জলছত্র বটতলা সড়কটি আরো উচু ও দুই পার্শ্বে ৪ফুট সম্প্রসারণ করার জন্য একটি ইষ্টিমিট করা হয়েছে। যা অতিদ্রুত পুনঃ সংস্কার করা সম্ভব হবে বলেও তিনি জানান।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
  • নির্বাচিত