মোরেলগঞ্জে রাস্তা কেটে শতশত মানুষের ভোগান্তি

মোরেলগঞ্জ প্রতিনিধি:

আপডেট : ০৫:২৩ পিএম, শনিবার, ১০ এপ্রিল ২০২১ | ৬০২

মোরেলগঞ্জে জনগুরুত্বপূর্ণ রাস্তা কেটে শতশত মানুষের চলাচলে ভোগান্তি সৃষ্টি করা হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। বারইখালী ইউনিয়নের ভাষন্ডা গ্রামে উদ্দেশ্য প্রণোদিতভাবে দুই জায়গা থেকে রাস্তা কেটে দিয়েছে স্থানীয় একটি প্রভাবশালী চক্র। এ ঘটনার প্রতিবাদে শনিবার বেলা ১১টায় ক্ষতিগ্রস্থ রাস্তায় বিক্ষোভ করেছেন দুই গ্রামের ভূক্তভোগী বাসিন্দারা। ইতোমধ্যে এ বিষয়ে জেলা প্রশাসক, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও প্রেসক্লাব বরাবরে অভিযোগ দায়ের করেছেন স্থানীয়রা।



অভিযোগে জানা গেছে, ভাষন্ডা গ্রামের সত্তার বয়াতীর ছেলে কবির বয়াতী ওরফে কবির ডাকাত ও তার বোন মর্জিনা বেগম মৎস্য ঘেরে পানি ওঠানোর জন্য ওই গ্রামের একটি রাস্তা দুই জায়গা থেকে কেটে দিয়েছে। ফলে নারী শিশু, স্কুল কলেজের শিক্ষার্থীসহ শতশত লোক এখন ওই রাস্তা থেকে চলাচল করতে পারছেন না। মোটর সাইকেল নিয়েও চলার মত ব্যবস্থা নেই। কবির বয়াতীর বিরুদ্ধে কথা বলে কেউ এলাকায় থাকতে পারেন না। নিরুপায় হয়ে প্রশাসনের দারস্থ হয়েছেন ভূক্তভোগীরা।



এ বিষয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. দেলোয়ার হোসেন বলেন, অভিযোগ পেয়ে কবির বয়াতীকে খবর দেওয়া হয়েছে কিন্তু সে আসেনি। এ সর্ম্পকে বারইখালী ইউপি চেয়ারম্যান শফিকুর রহমান লাল বলেন, সরকারি রাস্তা কেটে চলাচলে বিঘ্ন ঘটানোর বিষয়টি শুনে রাস্তা ভরাট করার জন্য একাধিকবার বলা হয়েছে। কিন্তু তারা কোন প্রকার কর্নপাত করছে না।


অপরদিকে এই কবির বয়াতী সম্পর্কে থানার ওসি মো. মনিরুল ইসলাম বলেন, কবির বয়াতী কবির ডাকাত নামে পরিচিত। কবির বয়াতীর বিরুদ্ধে মোরেলগঞ্জ থানায় পুলিশকে মারপিট ও দুটি ডাকাতি মামলাসহ ১৫টি মামলা রয়েছে। কিছুদিন পূর্বে পুলিশ তাকে গ্রেফতার করে জেলহাজতে পাঠালে সে কয়েক মাস জেল খেটে এখন জামিনে রয়েছে। সে ও তার পরিবারের সদস্যরা খুবই দুর্ধর্ষ প্রকৃতির।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
  • নির্বাচিত