বিপাকে পড়বে ২০টি পরিবার

চিতলমারীতে ঘাট দখল করে সরকারি গাছ কেটে ঘর নির্মান

চিতলমারী প্রতিনিধি

আপডেট : ০৮:০০ পিএম, মঙ্গলবার, ২৪ নভেম্বর ২০২০ | ৬৬৯

চিতলমারীতে সদ্য খননকৃত নদীর ঘাট দখল করে ও সরকারি গাছ কেটে এক প্রভাবশালী ঘর নির্মান করছেন। এতে কমপক্ষে ২০ টি পরিবার চরম বিপাকে পড়বে। এ ঘটনার প্রতিকার চেয়ে মঙ্গলবার দুপুরে স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদের সদস্য উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কাছে লিখিত একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন।


হিজলা ইউনিয়নের ৯ নং ওয়ার্ড সদস্য জগদীশ বসুর করা অভিযোগ পত্রে জানা গেছে, উপজেলার বোয়ালিয়া গ্রামের জয়ন্ত মন্ডল নামের এক প্রভাবশালী ব্যাক্তি ১/১ খাস খতিয়ানের জায়গার ঘাট দখল করে একটি নারকেল গাছসহ বিভিন্ন প্রজাতির সরকারি গাছ কেটে ঘর নির্মান করছেন। এতে কমপক্ষে ২০ টি পরিবারের গোসলসহ নানা ধরনের কাজে চরম বিঘ্ন ঘটবে।


এ ব্যাপারে হিজলা ইউনিয়নের ৯ নং ওয়ার্ড সদস্য জগদীশ বসু বলেন, জনস্বার্থে আমি সহ্য করতে না পেরে এই অভিযোগ করেছি। এতবড় অন্যায় মেনে নেয়া যায় না।


এলাকার বিদ্যুৎ বিশ্বাস, কিশোর বালা, নির্মল চন্দ্র, সকুমার বিশ্বাস ও বিশ্বজিত বিশ্বাস বলেন, জয়ন্ত মন্ডল এলাকায় খুবই প্রভাবশালী। ভয়ে আমরা কেউ টু শব্দটি করতে পারিনা।

জয়ন্ত মন্ডল বলেন, ছোট একটি নারকেল গাছ ও একটি কচা গাছ কেটেছি। সরকার চাইলে জায়গা ছেড়ে দিব। জায়গাটি আমার ক্রয়কৃত জমির সামনে। প্রয়োজনে আমি ওই জায়গায় পাঁকা ঘাট করে দেব।


চিতলমারী উপজেলা নির্বাহী অফিসার মারুফুল আলম বলেন, অভিযোগপত্রটি এখনও হাতে পাইনি। হাতে পেলে অবশ্যই আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।


তবে বাগেরহাট পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী নাহিদুজ্জামান খান বলেন, নদীর পাড়ে হলেও ওটি খাস খতিয়ানের জায়গা।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
  • নির্বাচিত